স্বাস্থ্যের জন্য সবচেয়ে ক্ষতিকর শাওমি-ওয়ান প্লাস, আই ফোন সেভেন-এর ক্ষেত্রেও রেডিয়েশনের পরিমাণটা ভয়ংকর।

১৩ ফেব্রুয়ারি ২০১৯, ১০:২১ এএম | আপডেট: ২৬ এপ্রিল ২০১৯, ০১:১৩ এএম


স্বাস্থ্যের জন্য সবচেয়ে ক্ষতিকর শাওমি-ওয়ান প্লাস, আই ফোন সেভেন-এর ক্ষেত্রেও রেডিয়েশনের পরিমাণটা ভয়ংকর।

অনলাইন ডেস্ক

বললে ভুল হবেনা যে, আমাদের জীবনের নিত্যসঙ্গী স্মার্টফোন। একটু সুযোগ পেলেই কাজ-পড়াশোনার ফাঁকে আমরা ঢুঁ মারি স্মার্টফোনের জগতে। একটু সময়ের জন্য প্রশান্তি খুঁজতে গিয়ে অনেক সময়ই আমরা কাটিয়ে দেই ঘণ্টার পর ঘণ্টা। কিন্তু আমরা কি ভাবতে পারি হাতে ধরা ফোনটির রেডিয়েশন কতোটা ঝুঁকিপূর্ণ ? 

সম্প্রতি ‘দ্য জার্মান ফেডারেল অফিস অব রেডিয়েশন প্রোটেকশন’ নামের একটি সংস্থা ফোনগুলির রেডিয়েশনের পরিমাণ জানিয়েছে। সেখানে দেখা গেছে শাওমি ও ওয়ান প্লাসের ফোনে রেডিয়েশনের মাত্রা সবচেয়ে বেশি। ২০১৮ সালের ১০ ডিসেম্বরের মধ্যে অ্যাপল, ব্ল্যাকবেরি, গুগল, এইসটিসি, হুয়াওয়েই, এলজি, মটোরোলা, ওয়ান প্লাস, স্যামসাং, সনি, শাওমি, জেডটিই এই ফোনগুলোর মধ্যে জরিপ চালায় সংস্থাটি।

বিশ্ব জুড়ে ফোনের ব্যবহারযোগ্য বা নিরাপদ অ্যাবসর্বশন রেট প্রতি কিলোগ্রামে শূন্য দশমিক ছয় ওয়াট। কিন্তু প্রতিবেদনে দেখা যায়, শাওমির এমআই এ১-এ রেডিয়েশন সবচেয়ে বেশি, যার পরিমাণ প্রতি কিলোগ্রামে এক দশমিক ৭৫ ওয়াট।

চিনের ওয়ান প্লাস ফাইভ-টির রেডিয়েশনের পরিমাণ প্রতি কিলোগ্রামে এক দশমিক ৬৮ ওয়াট। শাওমি এমআই ম্যাক্স তিন-এর ক্ষেত্রে রেডিয়েশনের পরিমাণ প্রতি কিলোগ্রামে এক দশমিক ৭৫ ওয়াট। এর পর রয়েছে ওয়ান প্লাস সিক্স-টি ও এইচটিসি ইউ১২ লাইফ। এই ফোনের ক্ষেত্রে রেডিয়েশনের পরিমাণ প্রতি কিলোগ্রামে এক দশমিক ৫৫ ও এক দশমিক ৪৮ ওয়াট।

এর পরই রয়েছে শাওমি এমআই মিক্স-থ্রি ও গুগল পিক্সেল থ্রি-এক্স এল। এই ফোনের ক্ষেত্রে রেডিয়েশনের পরিমাণ প্রতি কিলোগ্রামে এক দশমিক ৪৫ ও এক দশমিক ৩৯ ওয়াট। ওয়ান প্লাস ফাইভ ও আই ফোন সেভেন-এর ক্ষেত্রেও রেডিয়েশনের পরিমাণটা ভয়ংকর। ফোন দু’টির রেডিয়েশনের পরিমাণ প্রতি কিলোগ্রামে এক দশমিক ৩৯ ও এক দশমিক ৩৮ ওয়াট। আইফোন ৮-এর ক্ষেত্রে রেডিয়েশনের পরিমাণ প্রতি কিলোগ্রামে ১ দশমিক ৩২ ওয়াট।

সনি এক্সপেরিয়া এক্স জেড-১ কমপ্যাক্ট ও এইচটিসি ডিসায়ার ১২ ও ১২ প্লাসের ক্ষেত্রেও রেডিয়েশনের পরিমাণ কম নয়। ফোন দুটির রেডিয়েশন  এক দশমিক ৩৬ ও এক দশমিক ৩৪ ওয়াট প্রতি কিলোগ্রাম। শাওমি রেডমি নোট ৫-এর ক্ষেত্রে রেডিয়েশনের পরিমাণ এক দশমিক ২৯ ওয়াট প্রতি কিলোগ্রাম।

তবে স্যামসাং ফোনগুলো বেশ নিরাপদ বলে দেখা গেছে। স্যামসাং নোট ৮, এ৮ বা অন্য স্যামসাং ফোনের ক্ষেত্রে রেডিয়েশন যথাক্রমে শূণ্য দশমিক ১৭, শূণ্য দশমিক ২৪, শূণ্য দশমিক ২৬, শূণ্য দশমিক ২৯।