রায়পুরার মরজালে মিষ্টি দোকান ও পরিবহনে ভ্রাম্যমান আদালতের অভিযান

০৩ ফেব্রুয়ারি ২০১৯, ০৬:২৩ পিএম | আপডেট: ১৮ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ০৫:২৭ পিএম


রায়পুরার মরজালে মিষ্টি দোকান ও পরিবহনে ভ্রাম্যমান আদালতের অভিযান

নিজস্ব প্রতিবেদক

রায়পুরা উপজেলার ঢাকা-সিলেট মহাসড়কের মরজাল বাসস্ট্যান্ডে পরিবহন ও দোকানে অভিযান চালিয়ে অর্থদণ্ড দিয়েছেন ভ্রাম্যমান আদালত।

রবিবার (০২ ফেব্রুয়ারি)বিকালে জেলা প্রশাসক সৈয়দা ফারহানা কাউনাইন এর নির্দেশনা মোতাবেক ভ্রাম্যমান আদালত পরিচালনা করেন জেলা প্রশাসনের বিজ্ঞ এক্সিকিউটিভ ম্যাজিস্ট্রেট মোহাম্মদ শাহরুখ খান ও বিজ্ঞ এক্সিকিউটিভ ম্যাজিস্ট্রেট আরাফাত মোহাম্মদ নোমান।

জেলা প্রশাসন সূত্রে জানা গেছে, এ সময় মরজাল বাজারের কয়েকটি মিষ্টির দোকানে ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ আইন ২০০৯ এর ধারা অনুযায়ী বিভিন্ন মাত্রার অর্থদণ্ড করা হয়।

মোটরযান অধ্যাদেশ ১৯৮৩ এর ধারা অনুযায়ী মরজাল সংলগ্ন মহাসড়কে মোবাইল কোর্ট পরিচালনাকালে ভৈরব-ঢাকাগামী ওয়াহিদ ক্লাসিক পরিবহণের একটি বাসকে লাইসেন্স চেক করার নিমিত্তে থামতে বলা হলে বাসটি একজন আনসার সদস্যকে ধাক্কা দিয়ে পালিয়ে যেতে চেষ্টা করে। এমতাবস্থায় বাসটিকে আটক করা হয় এবং চালকের আসনে থাকা ব্যক্তির কাছে বৈধ লাইসেন্স বা যানবাহনের ফিটনেস সংশ্লিষ্ট কাগজপত্র পাওয়া না যাওয়ায় চালককে মোটরযান অধ্যাদেশ ১৯৮৩ এর ১৩৮ ধারা অনুযায়ী লাইসেন্সবিহীন গাড়ি চালানোর অপরাধে একমাসের বিনাশ্রম কারাদণ্ড প্রদান করেন বিজ্ঞ এক্সিকিউটিভ ম্যজিস্ট্রেট আরাফাত মোহাম্মদ নোমান।