চলতি মাসে এইচএসসি ও সমমানের ফল প্রকাশ করা হবে: শিক্ষামন্ত্রী

২৭ জানুয়ারি ২০২১, ১০:০৯ পিএম | আপডেট: ২৮ ফেব্রুয়ারি ২০২১, ০৬:৫৮ পিএম


চলতি মাসে এইচএসসি ও সমমানের ফল প্রকাশ করা হবে: শিক্ষামন্ত্রী
ফাইল ছবি

নিজস্ব প্রতিবেদক:

শিক্ষামন্ত্রী ডা. দীপু মনি বুধবার (২৭ জানুয়ারি) জানিয়েছেন, এইচএসসি ও সমমানের ফল নিয়ে আইনি জটিলতা শেষ হয়েছে। শিক্ষাবোর্ডগুলোকে ফল তৈরি, প্রকাশ ও সনদ বিতরণ করতে নির্দেশনা দেয়া হয়েছে। এখন প্রধানমন্ত্রীর কাছে সময় চাওয়া হয়েছে। তিনি (প্রধানমন্ত্রী) সময় দিলে চলতি মাসে (জানুয়ারি) এইচএসসি ও সমমানের ফল প্রকাশ করা হবে। জাতীয় শিক্ষাক্রম ও পাঠ্যপুস্তক বোর্ডে (এনসিটিবি) এক সভা শেষে তিনি এ তথ্য জানান।

শিক্ষামন্ত্রী বলেন, পরীক্ষা ছাড়াই এইচএসসি সমমান পরীক্ষার ফল প্রকাশে আর কোনো জটিলতা নেই। এ সংক্রান্ত আইন সংশোধন করা হয়েছে। শিক্ষাবোর্ডগুলোকে ফলাফল তৈরি করে তা প্রকাশের জন্য শিক্ষা মন্ত্রণালয় থেকে নির্দেশনা দেয়া হয়েছে।

তিনি বলেন, আইনি জটিলতার কারণে ২০২০ সালের পরীক্ষা ছাড়াই এইচএসসির ফল প্রকাশ করতে বিলম্ব হয়েছে। এ জন্য জাতীয় সংসদে আইনের সংশোধন করা হয়েছে। ফল প্রকাশে প্রধানমন্ত্রীর কাছে সময় চাওয়া হয়েছে। চলতি মাসে ফল প্রকাশ করা হবে।

এদিকে করোনা পরিস্থিতির কারণে ২০২০ শিক্ষাবর্ষের পরীক্ষা ছাড়া এইচএসসির ফল প্রকাশের ক্ষমতা পেয়েছে শিক্ষাবোর্ডগুলো। রাষ্ট্রপতির আদেশক্রমে বুধবার (২৭ জানুয়ারি) তিনটি আদেশ জারির মাধ্যমে কারিগরি, মাদরাসা ও সাধারণ বোর্ডগুলোকে ফলাফল তৈরি করতে বলা হয়েছে। ফল প্রকাশের জন্য আগামী ২৯ জানুয়ারি থেকে ৩ ফেব্রুয়ারির মধ্যে প্রধানমন্ত্রীর সময় চাওয়া হয়েছে বলে জানা গেছে।

নির্দেশনায় বলা হয়েছে, চলমান অতিমারি কোভিড-১৯ ভাইরাসজনিত কারণে ২০২০ সালের উচ্চমাধ্যমিক সার্টিফিকেট (এইচএসসি) পরীক্ষা আয়োজন করা সম্ভব হয়নি। এ অবস্থায় উচ্চমাধ্যমিক শিক্ষা অধ্যাদেশ ১৯৬১ সংশোধন আনা হয়েছে। সংশোধনী ২০২১ এর ধারা ১৮ অনুযায়ী এ প্রদত্ত ক্ষমতাবলে এ সংক্রান্ত গঠিত পরামর্শক কমিটির সুপারিশ অনুযায়ী উচ্চমাধ্যমিক পরীক্ষা ২০২০ এর ফলাফল প্রস্তুত, প্রকাশ ও সনদ বিতরণের জন্য সাধারণ, মাদরাসা ও কারিগরি শিক্ষাবোর্ডগুলোকে ক্ষমতা প্রদান করা হয়েছে। যথাযথ কর্তৃপক্ষের অনুমোদনক্রমে এ আদেশ জারি করা হয়েছে বলে উল্লেখ করা হয়েছে।


বিভাগ : বাংলাদেশ