১১ দফা দাবিতে পলাশের বাংলাদেশ জুটমিলে শ্রমিক বিক্ষোভ ও সমাবেশ

২৬ নভেম্বর ২০১৯, ০৩:২১ পিএম | আপডেট: ১১ ডিসেম্বর ২০১৯, ০৫:০৩ এএম


১১ দফা দাবিতে পলাশের বাংলাদেশ জুটমিলে শ্রমিক বিক্ষোভ ও সমাবেশ

পলাশ প্রতিনিধি:
নরসিংদীর ঘোড়াশালে বিক্ষোভ সমাবেশ করেছে বাংলাদেশ জুটমিলের শ্রমিকরা। মঙ্গলবার (২৬ নভেম্বর) বাংলাদেশ পাটকল শ্রমিকলীগ বাংলাদেশ জুটমিল শাখার উদ্যোগে মিলের শ্রমিকরা প্রশাসনিক ভবনের সামনে জড়ো হয়ে এ বিক্ষোভ সমাবেশ করে। সকাল ১০টা থেকে দুপুর ১২টা পর্যন্ত মিলের উৎপাদন বন্ধ রেখে বিক্ষোভ সমাবেশে মিলের প্রায় ৩ হাজার শ্রমিক-কর্মচারী অংশ নেয়।

প্রধানমন্ত্রী ঘোষিত শ্রমিকদের প্রস্তাবিত মজুরী কমিশন ২০১৫ বাস্তবায়ন এবং মিলের শ্রমিকদের ১১ সপ্তাহের বকেয়া মজুরী ও কর্মচারীদের ৩ মাসের এবং কর্মকর্তাদের ৪ মাসের বকেয়া বেতনসহ ১১ দফা দাবিতে এ সমাবেশ করা হয়।

এ সময় বক্তারা বস্ত্র ও পাটমন্ত্রী গোলাম দস্তগীর গাজী (বীরপ্রতিক) এর পদত্যাগ দাবী করেন এবং পাটমন্ত্রী ঘোষিত দেশের রাষ্ট্রায়ত্ব সব পাটকল পাবলিক প্রাইভেট পার্টনারশীপ (পিপিপি) করার সিদ্ধান্ত বাতিল করার আহবান জানানো হয়। এছাড়া মজুরী কমিশন, শ্রমিক-কর্মচারীদের বকেয়া মজুরী পরিশোধসহ ১১ দফা দাবি মেনে নেওয়ার আহবান জানান নতুবা আরও কঠোর কর্মসূচী দেওয়ার হুমকি দেন।

বাংলাদেশ জুট মিলের সিবিএ’র সভাপতি ইউসুফ আলীর সভাপতিত্বে বিক্ষোভ মিছিল শেষে এক সমাবেশে বক্তব্য রাখেন, বাংলাদেশ পাটকল শ্রমিকলীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি ও চট্টগ্রাম হাফিজ জুট মিলের সিবিএ’র সাধারণ সম্পাদক মোঃ মাহাবুবুল আলম, পাটকল শ্রমিকলীগের যুগ্ম সম্পাদক ও চট্টগ্রামের ঢাকা বাগদাদ জুট মিলের সিবিএ’র সাধারণ সম্পাদক মোঃ জাহাঙ্গীর আলম, খুলনার ক্রিসেন্ট জুট মিলের সিবিএ’র সাধারণ সম্পাদক মোঃ হেদায়েত উদ্দিন আজাদী, ডেমরার লতিফ বাওয়ানী জুট মিলের কার্যকরী কমিটির সভাপতি মোহাম্মদ আলী, ডেমরার করিম জুট মিলের সিবিএ’র সভাপতি জাকির হোসেন, নরসিংদীর ইউএমসি জুট মিলের সিবিএ’র সাধারণ সম্পাদক কামাল আহাম্মেদ, ইউএমসি জুট মিলের সিবিএ’র সাবেক সভাপতি জাকির হোসেন, আনিছুর রহমান, বাংলাদেশ জুট মিলের সিবিএ’র সাধারণ সম্পাদক আক্তারুজ্জামান ও সিবিএ’র নেতা হারুন-অর-রশিদ প্রমুখ।
#