আমদিয়ায় পুকুরে বিষ দিয়ে ৪ লক্ষ টাকার মাছ নিধন

০১ ডিসেম্বর ২০১৯, ০৯:২৬ পিএম | আপডেট: ১১ ডিসেম্বর ২০১৯, ০২:৩৪ এএম


আমদিয়ায় পুকুরে বিষ দিয়ে ৪ লক্ষ টাকার মাছ নিধন

নিজস্ব প্রতিবেদক:


নরসিংদী সদর উপজেলার আমদিয়ায় পুকুরে বিষ ঢেলে প্রায় ৪ লক্ষ টাকার মাছ নিধন করেছে দুর্বৃত্তরা। রাতের আধারে দুর্বৃত্তরা পুকুরের পানিতে বিষ ঢেলে দিলে মাছগুলো মরে ভেসে উঠে। গত সোমবার (২৫ নভেম্বর) আমদিয়া ইউনিয়নের বৈলাইন গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। এ ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেছেন স্থানীয় ৭ নং ওয়ার্ডের ইউপি মেম্বার হেলাল উদ্দিন।

পুকুরের মাছ চাষি মোঃ ছামাদ রহমান এর মেয়ে শিরিন আফরিন শিলা জানায়, তার পৈত্রিক মালিকানাধীন একটি পুকুরে পরিবারের পক্ষ থেকে মাছ চাষ করা হয়। পুঁজি না থাকায় মেসার্স শিরিন এগ্রো কমপ্লেক্স এর বিপরীতে অগ্রনী ব্যাংক লিঃ বাবুরহাট নরসিংদী শাখা হতে ৩ লক্ষ টাকা ঋণ নিয়ে আমি মাছ চাষ শুরু করি। তেলাপিয়া, রুই, কাতলা, বাটাসহ নানা প্রজাতির ৩ লক্ষ টাকার পোনা ছাড়া হয় এ পুকুরে। দীর্ঘদিন ধরে সঠিক পরিচর্যা করায় মাছগুলো বেড়ে উঠছিল। কিছু দিনের মধ্যেই মাছগুলো বিক্রি করার মতো উপযুক্ত হয়ে উঠতো। এই মুহুর্তে এমন ঘটনা ঘটায় পথে বসার উপক্রম হয়েছে আমার। একে ব্যাংকের ঋণ অপরদিকে বাকীতে মাছের খাবার ক্রয়ের ১ লাখ টাকা আমি কিভাবে পরিশোধ করবো তা বুঝে উঠতে পারছিনা।

এলাকাবাসী জানায়, কে বা কারা রাতের আধারে পুকুরে বিষ প্রয়োগ করে। খাবার দিতে গিয়ে সকালে পুকুরে ভেসে উঠা মৃত মাছগুলো দেখতে পায় পুকুর মালিক। কান্নায় ভেঙে পরেন তিনি। আশেপাশের লোকজন ঘটনাস্থলে এসে ধিক্কার জানাতে থাকে দুর্বৃত্তদের। তারা দুর্বৃত্তদের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি দাবী করেন।

এ ব্যাপারে পুকুর মালিক শিরিন আফরিন শিলা দুর্বৃত্তদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা গ্রহনের জন্য মাধবদী থানায় অভিযোগ দায়ের করেছেন।

শিরিন আক্তার শিলার স্বামী কাপড় ব্যবসায়ী কিরন জানায়, আমার শ্বশুর ছামাদ রহমানের সাথে তার এক প্রতিবেশির জমি সংক্রান্ত বিরোধ রয়েছে। এ নিয়ে পূর্ব থেকেই উভয়পক্ষের মধ্যে শত্রুতা বিদ্যমান। এরই জের ধরে শত্রুপক্ষ পুকুরে বিষ প্রয়োগ করতে পারে। তবে এলাকাবাসীও ধারণা করছে পূর্ব শত্রুতার কারনেই এ ঘটনা ঘটতে পারে। বিষয়টি অত্যন্ত অমানবিক। মাছে বিষ প্রয়োগে জড়িতদের খুজে বের করে দৃষ্টন্তমূলক শাস্তি দেয়ার দাবী জানাচ্ছি।